কাতার বিধ্বস্ত গাজা পুনর্গঠনে ৫০০ মিলিয়ন (৫০ কোটি) ডলার সহায়তা দিবে: কাতার পররাষ্ট্রমন্ত্রী

0

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট: হুসাইন।
আওয়ার টাইমস্ নিউজ: বুধবার (২৬ মে) কাতারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মুহম্মদ বিন আব্দুর রহমান আলে ছানী তার এক টুইটে বলেছেন: কাতার ফিলিস্তিনের গাজা পুনর্গঠনে ৫০০ মিলিয়ন (৫০ কোটি) ডলার সহায়তা দেয়ার ঘোষণা করছে। আলহামদুলিল্লাহ আমরা আমাদের ফিলিস্তিনী ভাইদের সহযোগিতায় সবসময়ই পাশে আছি। ফিলিস্তিন একটি স্বাধীন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা না হওয়া পর্যন্ত আমাদের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে ইনশাআল্লাহ।

এখন পর্যন্ত ইসরাইল ও হামাসের মধ্যস্থতাকারী হিসেবেও বিশ্বের অন্যতম ধনী দেশ কাতার বেশ ক-বার ভূমিকা রেখেছে। এছাড়া, ফিলিস্তিনে দীর্ঘদিন ধরে শত শত কোটি ডলারের মানবিক ত্রাণ সহায়তা করে যাচ্ছে দেশটি।

রমজানের শেষের দিক থেকে শুরু হওয়া ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাস ও ইসরাইলের মধ্যকার এই যুদ্ধে
দখ’ল’দার ই’হু’দি’বা’দী ইসরাইলি বাহিনীর হামলায় নারী শিশুসহ বহু নিরিহ ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন! হামাস নিয়ন্ত্রিত স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের হিসেবে এ সহিংসতায় গাজায় প্রায় একশ নারী ও শিশুসহ কমপক্ষে ২৩২ জন নিহত হয়েছে।

অন্যদিকে ইসরাইল জানিয়েছে তাদের হামলায় অন্তত একশ হামাস যোদ্ধা গাজায় নিহত হয়েছে, তবে হামাস অবশ্য তার যোদ্ধাদের ক্ষয়ক্ষতির কোন তথ্য প্রকাশ করেনি।

আরেকদিকে হামাসের রকেট হামলায় ইসরায়েলে দুটি শিশুসহ ১২ জন নিহত হয়েছে। ইসরায়েল দাবি করছে গাজা থেকে তার ভূখণ্ড লক্ষ্য করে অন্তত চার হাজার রকেট ছুড়েছে হামাস।

এদিকে,গেল সোমবার প্রথমবারের মতো ইসরাইল হামাসের হামলায় তাদের অর্থনীতির ব্যাপক ক্ষয়-ক্ষতির কথা স্বীকার করেছে। ইসরাইলি ম্যানুফেকচারারস অ্যাসোসিয়েশন এক বিবৃতিতে বলেছে: ফিলিস্তিনী প্রতিরোধ আন্দোলনকারীরা অপারেশন আল-কুদস্ নামে ১১ দিনের যে অভিযান চালায়, তাতে ১.২ বিলিয়ন শেকেল (ইসরাইলি মুদ্রা) বা ৩৬৮ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের সমপরিমাণ আর্থিক ক্ষতি হয়েছে। গাজা থেকে বৃষ্টির মতো ছোঁড়া রকেট হামলার ভয়ে এ সময় ইসরাইলের দেড় হাজার প্রতিষ্ঠানের চার লক্ষাধিক কর্মী বাড়ী থেকেই বের হননি। হামাসের হামলায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়েছে ইসরাইলের মধ্যাঞ্চল ও দক্ষিণাঞ্চলের শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোর। সূত্র: পার্সটুডে,আল-জাজিরা, বিবিসি নিউজ, তাসনিম নিউজ।

একটি মন্তব্য লিখুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে