চেরনোবিল ভয়াবহ পারমাণবিক দুর্ঘটনার ৩৫ বছর!

0

রিপোর্টার: সাইফুল ইসলাম।
আওয়ার টাইমস্ নিউজ: চেরনোবিল পারমাণবিক দুর্ঘটনার ৩৫ বছর পেরোল সোমবার। ১৯৮৬ সালের এদিনে সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নের অন্তর্গত ইউক্রেনের চেরনোবিল শহরে ভয়াবহ এ দুর্ঘটনায় ৩১ জনের প্রাণহানি ঘটলেও এটাকে সবচেয়ে গুরুতর পারমাণবিক দুর্ঘটনা বলা হয়। দিবসটি উপলক্ষ্যে নিহতদের স্মরণে জাতিসংঘসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন নানা কর্মসূচির আয়োজন করে থাকে। ২০১৬ সালের ৮ই ডিসেম্বর জাতিসংঘ সাধারণ সভায় ২৬শে এপ্রিলকে ‘আন্তর্জাতিক চেরনোবিল বিপর্যয় স্মরণ দিবস’ হিসেবে পালনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

চেরনোবিলে পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রে চারটি চুল্লি ছিলো। সেদিন রাতে কর্মরতদের অবহেলায় চতুর্থ চুল্লিটি বিস্ফোরিত হয়। এ দুর্ঘটনার পরপরই পারমাণবিক তেজস্ক্রিয়তা দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে। গ্রাস করে ২ হাজার ৬০০ বঃকিঃমিঃ এলাকা। এরপর তেজস্ক্রিয়তা রাশিয়া, ইউক্রেন ও বেলারুশের ১ লাখ ৫৫ হাজার বঃকিঃমিটারের মাঝে ছড়িয়ে পড়ে। এ বিস্ফোরণকে ১৯৪৫ সালে জাপানের হিরোশিমায় আমেরিকার নিক্ষিপ্ত বোমাটির মতো প্রায় ৫০০টি বোমার সমান মনে করা হয়! তেজস্ক্রিয়তার প্রভাবে পরবর্তী বিভিন্ন সময়ে প্রায় ৮ হাজার মানুষ ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে মারা যায়। প্রায় ৪ লাখ মানুষকে সরিয়ে নেয়া হয়। আর দুর্ঘটনা কবলিত চেরনোবিলকে ২০ হাজার বছরের জন্যে বসবাসের অনুপযোগী ঘোষণা করা হয়! সূত্র: মস্কো টাইমস।

একটি মন্তব্য লিখুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে