শপথ নিলেন খৃষ্টানপ্রধান দেশে মুসলমান প্রথমা প্রেসিডেন্ট!

0

আওয়ার টাইমস্ নিউজ।
ভারত মহাসাগরীয় পূর্ব আফ্রিকার সাবেক বৃটিশ উপনিবেশ ও খৃষ্টানপ্রধান দেশ তানজানিয়ায় মুসলমান প্রথমা প্রেসিডেন্ট হিসেবে গতকাল (শুক্রবার) শপথ নিয়েছেন সামিয়া সুলুহু হাসান (৬১)! অসুস্থতায় তার পূর্বসূরি জন পোম্বে জোসেফ মাগুফুলি বুধবার (১৭ই মার্চ) মারা যান; যদিও তার মৃত্যু নিয়ে রহস্য রয়েছে! সংবিধান মোতাবেক, আগামী পাঁচ বছর সামিয়া এ দায়িত্ব পালন করে যাবেন। রাজধানী দারুস সালামে শপথ অনুষ্ঠানে তিনি বলেন: আমি সামিয়া সুলুহু হাসান সততার সাথে তানজানিয়ার সংবিধান রক্ষা ও মেনে চলার অঙ্গীকার করছি।

২০১৫ সাল থেকে তানজানিয়ার ভাইস প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন সামিয়া। তাকে দেশবাসী ভালোবেসে ‘মামা সামিয়া’ নামে ডাকেন। ২০০০ সালে তিনি প্রথম আইনপ্রণেতা হিসেবে নির্বাচিত হন। ২০১৪ সালে সাংবিধানিক পরিষদের ভাইস-চেয়ারপার্সন হিসেবে প্রথম আলোচনায় আসেন তিনি। দেশটির মাকামবা নামের এক সাংসদ বলেন: রাজনৈতিক নেত্রী হিসেবে সামিয়া দেশ পরিচালনায় যোগ্যা। তিনি তাৎক্ষণিক সিদ্ধান্ত নিতে পারেন এবং শান্ত মেজাজের।

ইথিওপিয়ার প্রেসিডেন্ট সাহলি-ওয়ার্ক জাওডির পরে সামিয়া আফ্রিকার দ্বিতীয়া ও মুসলমান প্রথমা নারী রাষ্ট্রপ্রধান। অবশ্য তাদের আগে মহাদেশটিতে রুয়ান্ডার আগতে উওলিংহীমন (১৮ই জুলাই ১৯৯৩ – ৭ই এপ্রিল ১৯৯৪) ও বুরুন্ডির সিলভি কিনিগিও (২৭শে অক্টোবর ১৯৯৩ – ৫ই ফ্রেব্রুয়ারী ১৯৯৪) ভারপ্রাপ্ত প্রেসিডেন্ট ছিলেন।

আধা-স্বায়ত্তশাসিত দ্বীপ জানজাবির থেকে আসা সামিয়া তার ২০ বছরের রাজনৈতিক জীবনে স্থানীয় সরকার থেকে শুরু করে জাতীয় পরিষদের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তার স্বামী হাফিয আমির একজন অবসরপ্রাপ্ত কৃষি কর্মকর্তা। তাদের চারটি সন্তান রয়েছে। সূত্র: এএফপি ও অন্যান্য।

একটি মন্তব্য লিখুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে